Wednesday, September 12, 2018

প্রেমের কবিতা

প্রেমের কবিতা


আজ শেষ চৈত্রের বিকেলে
পথ জুড়ে মিছিল চলে গেছে।

প্রহর শেষের আলো
ফিরে গেছে শিশুদের মৃতদেহ নিয়ে।

এখন মধ্যরাত্রের পাথর ভাঙা ডিজের আওয়াজ।
ইংরাজি সময় অনুসারে হিন্দী গানে বাংলা বছরের আবাহন।

কাল এসপ্ল্যানেড অব্ধি আবার একটা মিছিলের ডাক।

এখনও আমি চুপচাপ শুয়ে
নবনীতা দেবসেনের "দুটো জিভজগৎ" জুড়ে যাওয়ার কবিতার কথা ভাবছি।

ভাবছি তোমার এলোমেলো হাসির কথা-
তোমার নস্যি রঙের জামার বোতামে এলোচুলে সন্ধ্যে নামাবার কথা,

কাল থেকে জারুল ফুটতে শুরু করেছে এখানকার গাছে।

তোমার জন্য রাঙিয়ে রাখছি ওড়না-

তোমার এক একটা আঙুল পিয়ানোর মত আমাকে বাজিয়ে নিক।

কেউ কেউ আমাকে জিগ্যাসা করে,
এত প্রেমের কবিতা কেন?

আমি ভাবি,
এত যে কবিতা! তবু ঘৃণা তো কমেনা!

এ প্রলাপে
শিলিং ফ্যানের পাশে কল্পনার নক্ষত্র এসে থামে,
এত অন্ধকারেও দেখি জ্যোৎস্নার ক্ষরণ।

তোমার মুখের চেয়ে উজ্জ্বল জ্যোৎস্না দেখিনি!

ভালোবাসতে বড় ভাল লাগে।

এই শেষ চৈত্রের রাত্রে,
এই তুমি চলে যাবে হয়তো-

তবুও তোমাকে ছাড়া
দুটো জিভজগৎ জুড়ে থাকা ছাড়া
আমার আর কিচ্ছু ভাবতে ভালো লাগেনা।

#অদিতি রায়

0 comments: